বৃহস্পতিবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:০৩ অপরাহ্ন

সেবাগ্রহীতারা পাচ্ছেন ডিজিটাল ভূমিসেবা

যশোর প্রতিনিধি:
  • প্রকাশিত সময় : রবিবার, ২২ আগস্ট, ২০২১
  • ১৫২ পাঠক পড়েছে

ঝিকরগাছায় ভূমি ব্যবস্থাপনা অটোমেশন প্রকল্প চালু

বাংলাদেশের প্রথম ডিজিটাল জেলা যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলায় ভূমি সংক্রান্ত প্রায় সব কাজ ডিজিটাল পদ্ধতিতে করা হচ্ছে। এর মধ্যে অন্যতম হলো অনলাইনে মামলার শুনানি গ্রহণ। এই পদ্ধতিতে একজন নাগরিক বাড়িতে বসে অথবা পৃথিবীর যে কোনো স্থান থেকে তার মিস কেস বা অন্যান্য কেসের জন্য অনলাইনে শুনানির জন্য আবেদন করতে পারেন। ফলে শুনানির নির্ধারিত দিনে নাগরিককে ভূমি অফিসে আসতে হয় না।

আবেদনকারী নিজ বাড়িতে বসে অথবা যে কোনো ইউনিয়ন ডিজিটাল সেন্টারে বসে অথবা তার কর্মস্থলে বসে অনলাইনে শুনানিতে অংশ নিতে পারছেন। ইতোমধ্যে ঝিকরগাছা উপজেলা ভূমি অফিসে প্রায় ত্রিশের অধিক মিস কেস মামলার অনলাইন শুনানি অনুষ্ঠিত হয়েছে। এছাড়া কোনো ব্যক্তি যদি আবেদনের মাধ্যমে তার আদেশের কপি পাওয়ার জন্য ইমেইল ঠিকানা দেন, তাহলে তাদের আদেশের কপি ই-মেইলেও দেয়া হচ্ছে। অনলাইন শুনানিতে বর্তমানে ঝিকরগাছা উপজেলা বাংলাদেশে প্রথম স্থানে অবস্থান করছেন।

ঝিকরগাছার সহকারী কমিশনার (ভূমি) কাজী নাজিব হাসান বলেন, আগের সময়ের চেয়ে বর্তমান সময়ে ভূমিসেবা আরো সহজ হচ্ছে। ভূমি বিষয়ক আগের জটিলতাগুলোকে মানুষের জন্য সহজ করার জন্য ভূমি মন্ত্রণালয় কর্তৃক ডিজিটাল পদ্ধতিতে সেবা দেয়া শুরু হয়েছে। এছাড়াও বেশ কিছু আইন-কানুন-বিধি সংশোধিত হচ্ছে। ইতোমধ্যে মিস কেসের মাধ্যমে খতিয়ানের করণিক ভুল সংশোধনের জন্য পরিপত্র জারি হয়েছে। ফলে সহকারী কমিশনাররা (ভূমি) এখন আগের চেয়ে অনেক বেশি রেকর্ডের ভুল সংশোধন করতে পারছেন। আমরা ইতোমধ্যে ঝিকরগাছা উপজেলা ভূমি অফিসে এ ধরনের রেকর্ডের করণিক ভুল সংশোধন করছি। এছাড়া বর্তমানে ই-মিউটেশন, অনলাইনে খাজনার রেজিস্ট্রেশন চলছে।

উল্লেখ্য ভূমি মন্ত্রণালয় কর্তৃক গত ২৯ জুলাই তারিখে জারিকৃত এক পরিপত্রে উল্লেখ করা হয় যে, ভূমি মালিকগণের সুবিধার্থে চূড়ান্তভাবে মুদ্রিত ও প্রকাশিত খতিয়ানের তিন ধরনের ভুল ভূমি অফিসেই সংশোধন করা হবে। এগুলো হচ্ছে করণিক ভুল, প্রতারণামূলক লিখন, যথার্থ ভুল। যথাযথ আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে সংশ্লিষ্ট সহকারী কমিশনার (ভূমি) উপযুক্ত ভুল সংশোধনের ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন। এছাড়া প্রযোজ্য ক্ষেত্রে তিনি সংশ্লিষ্ট কালেক্টর (জেলা প্রশাসক) কিংবা জোনাল সেটেলমেন্ট অফিসার থেকে নির্দেশ গ্রহণ করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন।

তবে খতিয়ানের কোন ভুলের ফলে যদি স্বত্ব স্বার্থের সংশ্লিষ্ট বিরোধ (ঈরারষ খরঃরমধঃরড়হ) দেখা দেয়, ভুল সংশোধন করতে গিয়ে যদি সত্বের পরিমাণে হ্্রাস-বৃদ্ধি ঘটে, ভুল সংশোধন করতে গিয়ে যদি অন্যের সত্বের পরিবর্তন ঘটে, ভুল সংশোধন করতে গিয়ে যদি অন্য কেউ লাভবান বা ক্ষতিগ্রস্ত হয় ও কোন ভুল যদি অন্য কোনভাবে স্বত্বকে প্রভাবিত করে। সেক্ষেত্রে খতিয়ান সংশোধন এর সহকারী কমিশনার (ভূমি)’র এখতিয়ার থাকবে না। দেওয়ানী আদালত বা ল্যান্ড সার্ভে ট্রাইব্যুনালের রায় অনুযায়ী এ ধরনের ভুল খতিয়ান সংশোধন করতে হবে।

নিউজটি শেয়ার করে আমাদের সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর
© All rights reserved © 2019-2020 । দৈনিক আজকের সংবাদ
Design and Developed by ThemesBazar.Com
SheraWeb.Com_2580